আয়ত্তে আনা যাচ্ছে  না ক্যালিফোর্নিয়ার দাবানল,মৃতের সংখ্যা বেড়ে তেইশ

আয়ত্তে আনা যাচ্ছে  না ক্যালিফোর্নিয়ার দাবানল,মৃতের সংখ্যা বেড়ে তেইশ

গত দুদিন ধরে বাগে আনা যাচ্ছেনা ক্যালিফোর্নিয়ার দাবানল,ক্রমশই ছড়িয়ে পড়ছে আগুন আর যার জেরে এখনও অবধি প্রান হারিয়েছে প্রায় তেইশ এবং নিখোঁজ প্রায় শ খানেক মানুষ, ৬৮ হাজার হেক্টর জমির ক্ষতি হওয়ার পাশাপাশি প্রায় সাড়ে তিন হাজার বাড়ি সম্পূর্ণভাবে ভষ্যিভূত হয়েছে। তীব্র হাওয়ার দাপটে আগুন নেভাতে সমস্যায় পড়েছে দমকল। ফলে, সমস্যা কমার বদলে ক্রমাগত তা বেড়েই চলেছে।

এরইমধ্যে নতুন করে শুকনো ঝোড়ো হাওয়ার পূর্বাভাস দিয়েছে সেদেশের আবহাওয়া দফতর। ফলে পরিস্থিতি আরও খারাপের দিকেই এগোবে বলে মনে করা হচ্ছে। সেখানকার ওয়াইনও খুবই বিখ্যাত। কিন্তু আগুনের জেরে সেই ওয়াইন চাষ ব্যাপকভাবে মার খাচ্ছে বলে প্রশাসনের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে।

বর্তমানে ৭৩টি হেলিকপ্টার, ৩০টি এয়ার ট্যাঙ্কার ও ৮ হাজার দমকলকর্মী আগুন নিয়ন্ত্রণে আনতে যুদ্ধকালীন তৎপরতায় কাজ চালিয়ে যাচ্ছেন। এছাড়াও আমেরিকার বিভিন্ন জায়গা থেকে অতিরিক্ত ২০০টি দমকলের ইঞ্জিন ক্যালিফর্নিয়ায় পাঠানো হয়েছে।

প্রশাসনের তরফে ইতিমধ্যেই সেখান থেকে কয়েক হাজার মানুষকে অন্যত্র সরিয়ে নেওয়া হয়েছে। আগুন দ্রুত নিয়ন্ত্রণে আনার চেষ্টাও চলছে।

প্সঙ্গত,সোনোমা কাউন্টিতে দশ হাজার মতো ঘর বাড়ি বিদ্যুৎহীন হয়েছে। এই দাবানল ক্যালিফোর্নিয়ার আধুনিক ইতিহাসের এক অন্যতম ভয়ঙ্কর ঘটনা। দাবানলে ক্ষতিগ্রস্ত বাড়িগুলিতে বিদ্যুৎ ফিরিয়ে আনার জন্য কাজ করছে প্যাসেফিক গ্যাস এবং ইলেকট্রিক কম্পানি। সোনোমা কাউন্টি সুপারভাইজ়ার শার্লি জেইন বলেন, সান্তারোজ়া, উইন্ডসর, ইউন্টভিল, নাপা এবং কেইনউডের ২৮০০০ গ্রাহক গ্যাস পরিসে