ইন্দোনেশিয়া সুনামিতে মৃতের সংখ্যা ছাড়াল প্রায় চারশো

ইন্দোনেশিয়া সুনামিতে মৃতের সংখ্যা ছাড়াল প্রায় চারশো

ভূমিকম্পের পর প্রবল সুনামির জেরে প্রাণ হারালেন প্রায় চারশোর বেশি মানুষ, শুক্রবার দুপুর নাগাদ প্রবল ভূমিকম্পে প্রায় ১০ ফুট উচ্চতার জলোচ্ছ্বাস আছড়ে পড়ে সুলাওয়েসি দ্বীপে। পুলু, ডোঙ্গালা শহরের বিস্তৃণ এলাকা সুনামির দাপটে বিধ্বস্ত। সোশ্যাল মিডিয়ার একটি ভিডিও-য় তার নমুনা দেখে গিয়েছে।

শনিবার সকালে প্রশাসনের তরফে যে খবর জানানো হয়েছে, ডোনগালার তালিসা বিচে শুক্রবার ধেয়ে আসে সুনামি৷ মুহূর্তে ভাসিয়ে নিয়ে যায় সবকিছু৷ইতিমধ্যেই সোশাল মিডিয়ায় সেই ভয়াবহতার বেশ কিছু ছবি, ফুটেজ ভাইরাল৷ আতঙ্কে মানুষের আর্তনাদ, সবছেড়ে প্রাণ বাঁচানোর জন্য ছুট, ত্রাহি ত্রাহি রব! ন্যাশনাল ডিজাসটার ম্যানেজমেন্ট এজেন্সির মুখপাত্র জানান, আহতদের সকলকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়েছে৷ চিকিৎসা চলছে৷

ইন্দোনেশিয়ার বিপর্যয় মোকাবিলা এজেন্সি মৃতের সংখ্যা সরকারিভাবে জানিয়েছে। পালুতে সবচেয়ে বেশি ভয়ঙ্কর অবস্থা। মৃতের সংখ্যা আরও বাড়তে পারে বলে সরকারি সূত্রে ইঙ্গিত দেওয়া হয়েছে।পালুর মোট জনসংখ্যা সাড়ে তিন লক্ষ। সেখানে দেড় মিটার উঁচু সুনামির ডেউ আছড়ে পড়েছে। শুক্রবার পালুতে বিচ ফেস্টিভ্যাল শুরু হওয়ার কথা ছিল। ফলে উপকূল এলাকায় অনেক মানুষ জমায়েত হন। তাদের মধ্যে অনেকের খোঁজ পাওয়া যাচ্ছে না। হাসপাতালগুলিতে আহতের ভিড় উপচে পড়েছে।

উল্লেখ্য, ২০০৪ সালে ভূমিকম্পের জেরে সুনামিতে ইন্দোনেশিয়া-সহ প্রায় ১২টি দেশে ২ লক্ষ ৩০ হাজার মানুষ মারা গিয়েছে। সে সময় রিখটার স্কেলে কম্পনের তীব্রতা ছিল ৯.১।