ডিসেম্বরের ছুটিটা লাক্ষাদ্বীপে কাটিয়ে আসুন

ডিসেম্বরের ছুটিটা লাক্ষাদ্বীপে কাটিয়ে আসুন

উত্সবের মরশুম শেষ তো কি হয়েছে,এখনো কিন্তু ছুটির শেষ নেই,সামনেই শীতবকাশ,টানা বেশ কয়েকদিন গা এলিয়ে কাটানোর দিল,তাই ঘুরতে যাওয়ার প্ল্যান সেরে নেওয়াই ভালো,,তাছাড়া এখন টিকিট না ববুক করলে কিন্তু এ বছরের প্ল্যান পরের বছর পূরন করতে হবে,ডিসেম্বরের শীতের মেজাজে লাক্ষাদ্বীপে ঘুরতে গেলে মন্দ হবে না,শীতের ছুটিতে লাক্ষাদ্বীপে বেড়ানোটা মন্দ হবে না। কেরলা উপকূলে, আরব সাগরে অবস্থিত এই দ্বীপপুঞ্জে নৈসর্গিক সৌন্দর্য আজও আকর্ষণ করে পর্যটকদের।
 

ট্যুরিজিম পারমিট নিয়ে কয়েকটি তথ্য ভারতীয়দের লাক্ষাদ্বীপের ৩৬ টি দ্বীপে বেড়াতে যাওয়ার অনুমতি রয়েছে। তবে সেই অনুমতি বিদেশীদের নেই। বিদেশীরা কেবলমাত্র এই দ্বীপপুঞ্জের ৩ টি দ্বীপেই ঘুরে বেড়ানোর অনুমতি পান।

কালপেনি ,কাদমাত দ্বীপ কালপেনির সঙ্গে অনেকটাই মিল রয়েছে মালদ্বীপের। স্বচ্ছ্ব নীল জলের সঙ্গে নীল আকাশ মিলে যে দীগন্ত তৈরি করে তা লাক্ষাদ্বীপের প্রকৃতির আলাদা সম্পদ। কালপানি আর কাদামাত লাক্ষাদ্বীপের অন্যতম আকর্ষণীয় পর্যটনস্থল।

 

মিনিকয় , কাভারত্তি দ্বীপ দ্বীপের প্রশাসনিক কার্যালয় রয়েছে কাভারত্তিতে। এখানের লাগুন আর সবুজায়নের মিশেল পর্যটকদের বিশেষবাবে আকর্ষণ করে । অন্যান্য দ্বীপপুঞ্জ থেকে মিনিকয় একটু দূরে । একাকীত্ব অনুভব করতে এই জায়গার বিশেষত্বই আলাদা