কর্ণাটকে পালিত হল টিপু জয়ন্তী, চলল বিজেপির বিক্ষোভও

কর্ণাটকে পালিত হল টিপু জয়ন্তী, চলল বিজেপির বিক্ষোভও

শনিবার টিপু সুলতানের জন্মজয়ন্তী পালিত হল কর্ণাটকে। রাজ্য বিধানসৌধ সাজানো হয় এই উপলক্ষ্যে। তবে অসুস্থ থাকার কারণে এদিনের সরকারি অনুষ্ঠানে অংশ নেননি মুখ্যমন্ত্রী এইচডি কুমারস্বামী। তাঁর পরিবর্তে উপস্থিত ছিলেন উপ মুখ্যমন্ত্রী জি পরমেশ্বর। মুখ্যমন্ত্রী টিপুর প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে বার্তায় বলেছেন, প্রশাসনিক স্তরে টিপু সুলতানের উন্নয়নশীল পদক্ষেপ, অজানাকে জানার তাঁর উৎসাহ সবসময়ই প্রশংসনীয়।

বেঙ্গালুরুর পুলিস কমিশনার টি সুনীল বলেছেন, শুধু বিধানসৌধের অনুষ্ঠানের জন্যই ৫০০ জন পুলিশকর্মী মোতায়েন করা হয়েছে। এছাড়া বিভিন্ন জোনের ডিসিপির নেতৃত্বে ১৫০০০ পুলিসকর্মী সারা বেঙ্গালুরুজুড়ে মোতায়েন করা হয়েছে। 

টিপু সুলতানের জন্মজয়ন্তী নিয়ে এদিন বিক্ষোভ দেখায় বিজেপি। কারণ বিজেপির যুক্তি, টিপু জয়ন্তীর অনুষ্ঠান আসলে জোট সরকারের দু’‌মুখো নীতি এবং ছদ্ম ধর্মনিরপেক্ষতা। এদিন বিক্ষোভের জেরে কোডাগু, হুবলি, ধারওয়াড়ে ১৪৪ ধারা জারি হয়েছে।এছাড়াও রাজ্যের বিভিন্ন এলাকায় কড়া নিরাপত্তা বেষ্টনী। কোনওরকম জমায়েতে নিষেধাজ্ঞা আরোপ করেছে সরকার। কোডাগু জেলার বাসিন্দাদের অভিযোগ, টিপুর শাসনকাল পরবর্তী সময়ে তাদের এলাকা জনশূন্য হয়ে গিয়েছিল। কারণ এই এলাকার ৭০০০০ মানুষকে হত্যা এবং ৯০০০০ মানুষকে জেলবন্দি করেছিলেন টিপু কারণ তাঁরা ইসলামে ধর্মান্তরিত হতে চাননি বলে। শনিবার সকালেই কোডাগুতে বিক্ষোভ দেখানোর সময় বেশ কয়েকজনকে আটক করে পুলিশ। 

কোডাগুর এসপি সুমনা ডি পান্নেকারা বলেছেন, কাউকে যাতে দোকান বন্ধ করতে বাধ্য না করা হয়, সেদিকে কড়া নজর রাখা হয়েছে।