কথা রাখল না, পাকিস্তানে দিলীপ কুমারের বাড়ি ভাঙা পড়ল

কথা রাখল না, পাকিস্তানে দিলীপ কুমারের বাড়ি ভাঙা পড়ল

একটিমাত্র স্মৃতি ছিল, সেটাও মুছে গেল হঠাৎ ! পাকিস্তানে থাকা বলিউডের কিংবদন্তী অভিনেতা দিলীপ কুমারের প্রায় শতক বছরের পুরনো পৈতৃক ভিটেটি ভেঙে পড়ল ৷ জানা গিয়েছে, পাকিস্তানে দিলীপকুমারের পৈতৃক বাড়িটি বহুদিন ধরেই জীর্ন অবস্থায় পড়েছিল ৷ শেষমেশ ভেঙে পড়ল বাড়িটি ৷

পাকিস্তানের খাইবার পাখতুনখাওয়া জেলার মোহল্লা খুদা দাদ এলাকায় ঐতিহাসিক কিস্সা খওয়ানি বাজারে ছিল অভিনেতার পৈতৃক ভিটেটি। এখন সেখানে দাঁড়িয়ে রয়েছে শুধু বাড়িটির সামনের অংশ এবং ঢোকার মূল ফটকটি।এই বাড়িটির রক্ষণাবেক্ষণের বিষয়ে খাইবার পাখতুনখাওয়া সরকার চিরকালই উদাসীন ছিল। সেই জন্যে সরকারের সমালোচনাতেও সরব হয়েছেন শহরের বিশিষ্টজনেরা। ২০১৪ সালে এই বাড়িটিকে জাতীয় ঐতিহ্য হিসেবেও আখ্যা দিয়েছিল প্রত্নতত্ত্ব বিভাগ।

কালচারাল হেরিটেজ কাউন্সিলের সাধারণ সম্পাদক শাকিল ওয়াহিদুল্লা জানিয়েছেন, এই বাড়িটির রক্ষণাবেক্ষণের জন্যে মোট ছটি আবেদনপত্র সরকারের কাছে জমা দিয়েছিলেন তিনি। কিন্তু কোনও পদক্ষেপই গ্রহণ করা হয়নি সরকারের তরফে। দিলীপ-পত্নী সায়রা বানুকেও এই বিষয়ে জানানো হয়েছে। জানা গিয়েছে তিনি এই বাড়ি ভেঙে পড়ার খবরে খুবই মর্মাহত।

তবে প্রত্নতত্ত্ব বিভাগ এবং জাদুঘরের ডিরেক্টর আব্দুল সামাদ জানিয়েছেন, বাড়িটি ভেঙে পড়ে একদিকে ভালই হয়েছে, কারণ ওই ভিটেটি আর কোনওভাবেই সারানো যেত না। সম্পূর্ণ ভেঙেই তবে সেটা ফের তৈরি সম্ভব। প্রসঙ্গত, এই বাড়ি নিয়ে প্রত্নতত্ত্ব বিভাগের সঙ্গে একটি আইনি ঝামেলা চলছিল, কারণ বাড়িটি এইমুহূর্তে অন্য একজনের মালিকানায় ছিল। তবে নতুন আইন মেনে এই কাজটি করতে কোনও অসুবিধা হবে না প্রত্নতত্ত্ব বিভাগের।