পঞ্চায়েত নির্বাচনে অনলাইন মনোনয়ন ব্যবস্থা চায় বিজেপি

পঞ্চায়েত নির্বাচনে অনলাইন মনোনয়ন ব্যবস্থা চায় বিজেপি

পঞ্চায়েত ভোট নিয়ে আগেভাগে সতর্ক থাকতে চায় রাজ্য বিজেপি। পঞ্চায়েত নির্বাচনের আগে অশান্তির পরিবেশ তৈরি হবে এই আশঙ্কায় আগাম রাজ্যপালের দ্বারস্থ হল বিজেপি। তাদের দাবি, বিরোধী প্রার্থীদের নিরাপত্তার স্বার্থে অনলাইনে মনেনায়ন জমা দেওয়ার ব্যবস্থা রাখতে হবে। পাশাপাশিই পর্যাপ্ত কেন্দ্রীয় বাহিনী দিয়ে পঞ্চায়েত ভোট করাতে হবে।

গতকাল, সোমবার রাজ্যপাল কেশরীনাথ ত্রিপাঠীর সঙ্গে দেখা করে পঞ্চায়েত ভোট সংক্রান্ত নিরাপত্তার বন্দোবস্ত নিয়ে কথা বলেন দিলীপ ঘোষ, মুকুল রায়, জয়প্রকাশ মজুমদারেরা। কেওড়াতলায় শ্যামাপ্রসাদ মুখোপাধ্যায়ের মূর্তি ‘শোধন’ করতে গিয়ে যে ভাবে বিজেপি কর্মীরা তৃণমূলের হাতে আক্রান্ত হয়েছে, সেই বিষয়েও অভিযোগ জানান তাঁরা। 

রাজভবন থেকে বেরিয়ে বিজেপির রাজ্য সভাপতি দিলীপবাবু বলেন, ' শাসক দল সব সময় বলছে, বিরোধীশূন্য পঞ্চায়েত করতে হবে! তার মানে পঞ্চায়েত ভোটে বিরোধীদের প্রার্থী দিতেই দেওয়া হবে না। এই পরিস্থিতিতে শুধু বিডিও দফতরে মনোনয়ন জমা নিলে হবে না। রাজ্যপালের কাছে দাবি জানিয়েছি, মহকুমাশাসকের দফতরেও মনোনয়নের ব্যবস্থা রাখা হোক। সেই সঙ্গে থাকুক অনলাইন মনোনয়ন। ' কেন্দ্রীয় বাহিনীর জন্য দিলীপবাবুরা রাজ্য নির্বাচন কমিশনের কাছে ফের দাবি জানাবেন। রাজ্যপালও যাতে উদ্যোগী হন, সেই আর্জি জানানো হয়েছে।

উল্লেখ্য, পঞ্চায়েত ভোটের আগে রাজ্যে আসতে পারেন বিজেপির সর্বভারতীয় সভাপতি অমিত শাহ। দিলীপবাবু অবশ্য বলেন, ' এপ্রিলে যে সময়ের কথা ভাবা হয়েছে, তখনও পরীক্ষার জন্য মাইক ব্যবহারে অসুবিধা থাকবে। পঞ্চায়েত ভোট ঘোষণা হয়ে গেলে মনোনয়ন ঘিরেও উত্তেজনা থাকবে। তাই তখন সভাপতিকে আনা যাবে কি না, এই নিয়ে দিল্লিতে ১৭ মার্চ আলোচনা হবে। '